চুল ফেটে যাওয়া রোধ করতে চুলের যত্নে অ্যালোভেরা

Leave a comment

জানেন কি,আপনার চুলের অল-ইন-ওয়ান যত্নে কোনো ম্যাজিক উপাদান যদি থেকে থাকে, তাহলে সে হল অ্যালোভেরা জেল। কারণ অ্যালোভেরায় প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, প্রোটিন আর নানা মিনারেলস থাকে, যা চুলে পুষ্টির যোগান দেয় আর চুলকে ঘন, জেল্লাদার করে তোলে।

১. অ্যালোভেরায় প্রচুর পরিমাণে প্রোটিয়োলাইটিক এনজাইম থাকে, যা আপনার স্ক্যাল্পের ড্যামেজকে সারিয়ে তুলতে পারে। তার ফলে আপনার হেয়ার ফলিকলেরও পুষ্টি হয়, আর চুল বাড়েও খুব তাড়াতাড়ি।

২. তাছাড়া যদি খুব বেশীই হেয়ার ফল হতে শুরু করে, তাহলে চোখ বুজে অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করতে শুরু করে দিন। কারণ অ্যালোভেরা জেল চুলের গোড়া শক্ত করে, ফলে চুল পড়াও কম হয়।

৩. অ্যালোভেরায় থাকা অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান স্ক্যাল্পে ইনফেকশনের সম্ভাবনাকে কমায় আর স্ক্যাল্পের প্রদাহ বন্ধ করে।

৪. অ্যালোভেরায় প্রচুর পরিমাণে ময়েশ্চারাইজার থাকে, যা চুলকে খুব সুন্দরভাবে কন্ডিনশন্ড করে, আর খুশকির সমস্যা যদি থেকে থাকে, তাহলেও অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করুন।

তাহলে আসুন, আর দেরী না করে জেনে নিন আপনার চুলের যত্নে অ্যালোভেরার দারুণ ১০ টি হেয়ার প্যাকের সুলুক-সন্ধান।

১. ক্যাস্টর অয়েল আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

ক্যাস্টর অয়েল
আপনার চুলের বৃদ্ধিতে ক্যাস্টর অয়েল কিন্তু দারুণ কাজ দেয়।আর অ্যালোভেরা জেলের সাথে একে মিশিয়ে যদি ব্যবহার করেন, তাহলে চুল তাড়াতাড়ি তো বাড়বেই, সেইসাথে হেয়ার ফলের সমস্যা যদি থেকে থাকে, তাহলে সেটাও জলদি ভ্যানিশ হবে। তাছাড়া চুলের গোড়া শক্ত করতে আর চুলের আগা ফাটা, হেয়ার ব্রেকেজ—ইত্যাদি থেকে মুক্তি পেতেও এই হেয়ার প্যাক ব্যবহার করুন।

উপকরণ
ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল ১ কাপ, ক্যাস্টর অয়েল ২ চামচ, মেথি গুঁড়ো ২ চামচ।

পদ্ধতি
একটা বাটিতে ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল, ক্যাস্টর অয়েল আর মেথির গুঁড়ো ভালো করে মিশিয়ে নিন। তারপর আপনার স্ক্যাল্পে আর চুলের গোড়ায় ভালো করে ম্যাসাজ করে মাখুন। এবার একটা শাওয়ার ক্যাপ মাথায় দিয়ে রাতে ঘুমিয়ে পরুন। দরকার হলে একটা তোয়ালেও মাথায় জড়িয়ে রাখতে পারেন, তাহলে তা আপনার চুলে এক্সট্রা হিটের যোগান দেবে। পরদিন সকালে উঠে ভালো করে শ্যাম্পু করে কন্ডিশনার দিয়ে ঠাণ্ডা জলে মাথা ধুয়ে নিন। সপ্তাহে অন্তত ১-২ বার করুন। উপকার পাবেনই।

২. নারকেল তেল, মধু আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

চুল যদি খুব বেশী ড্রাই হয়ে যায়, তাহলে এই হেয়ার প্যাকটি ব্যবহার করুন। কারণ নারকেল তেল আর মধু আপনার চুলে ময়েশ্চারের যোগান দেবে। আর চুলকে কন্ডিশন্ড করে নরম আর সিল্কি করে তুলবে।

উপকরণ
অ্যালোভেরা জেল ৫ চামচ, নারকেল তেল ৩ চামচ, মধু ২ চামচ।

পদ্ধতি
মধু, নারকেল তেল আর অ্যালোভেরা জেল একসাথে মিশিয়ে একটা স্মুদ মিক্সচার তৈরি করুন। তারপর চুলের গোড়ায় আর স্ক্যাল্পে ভালো করে ম্যাসাজ করে লাগিয়ে ফেলুন। এরপর মাথায় শাওয়ার ক্যাপ লাগিয়ে ২৫-৩০ মিনিট রেখে ঠাণ্ডা জলে ধুয়ে শ্যাম্পু করে নিন। দেখবেন চুল কি সুন্দর ফুরফুরে আর শাইনি হয়েছে! সপ্তাহে একবার করেই দেখুন না, চুলের জেল্লায় নিজেই কাত হয়ে যাবেন।

৩. ডিম, অলিভ অয়েল আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

ডিমের কুসুমে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট থাকে, যা চুলকে খুব সুন্দরভাবে কন্ডিশন্ড করে একটা গ্লসি টেক্সচার দেয়। আর অলিভ অয়েল আপনার চুলে তার প্রয়োজনীয় পুষ্টির যোগান দেয়।

উপকরণ
ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল ৪ চামচ, অলিভ অয়েল ৩ চামচ, ডিমের কুসুম ১ টা।

পদ্ধতি
ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল, অলিভ অয়েল আর ডিমের কুসুম একটা বাটিতে ভালোভাবে মিশিয়ে চুলে আর স্ক্যাল্পে ভালো করে ম্যাসাজ করুন, বিশেষ করে চুলের গোড়ায়। গোটা মাথায় লাগানো হয়ে গেলে শাওয়ার ক্যাপ দিয়ে ভালো করে চুল ঢেকে ২৫ মিনিট মতো রাখুন। তারপর ভালো করে শ্যাম্পু করে ধুয়ে ফেলুন। ডিমের গন্ধ সহ্য করে সপ্তাহে একদিন করেই দেখুন না। তারপর বারবার করতে ইচ্ছে করবে।

৪. পেঁয়াজ আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

মাথার চুল যদি কি সব পড়েই যাচ্ছে নাকি? কিন্তু সেই তুলনায় নতুন চুল গজাচ্ছে না? চাপ নেই বন্ধুরা। এই প্যাকে থাকা পেঁয়াজের রস কিন্তু আপনার চুল পড়া কমাবেই না, চুল নতুন করে গজাতেও সাহায্য করবে।

উপকরণ
পেঁয়াজের রস ১ কাপ, অ্যালোভেরা জেল ১ চামচ।

পদ্ধতি
পেঁয়াজের রসের সাথে জাস্ট অ্যালোভেরা জেলটা মিশিয়ে নিন। এবার মাথার স্ক্যাল্পে ভালো করে লাগিয়ে নিন। একঘণ্টা মতো রেখে হালকা শ্যাম্পু দিয়ে মাথা ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ১ দিন করে করুন। একমাসে দেখবেন আপনি ঘন কালো স্বপ্নের চুল পেয়ে যাচ্ছেন।

৫. নারকেলের দুধ আর অ্যালোভেরা জেলের হেয়ার প্যাক

আপনার হেয়ার ফলের অন্যতম কারণ কিন্তু চুলের পুষ্টির অভাব। তাই চুলে নারকেলের তেলের বদলে নারকেলের দুধ লাগিয়েই দেখুন। এটা আপনার চুলকে ভেতর থেকে পুষ্টির যোগান দিয়ে চুলকে নারিশ করে তুলতে সাহায্য করে।

উপকরণ
অ্যালোভেরা জেল ৪ চামচ, নারকেলের দুধ ৪ চামচ, নারকেল তেল ১ চামচ।

পদ্ধতি
সব উপকরণ ভালো করে মিশিয়ে একটা স্মুদ মিশ্রণ তৈরি করুন। এবার আপনার মাথায় স্ক্যাল্পে এটা ভালো করে লাগিয়ে ফেলুন। আধঘণ্টা মতো রেখে মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। সপ্তাহে একবার করে নিয়ম করে একমাস করে যান। ফল দেখে আপনি নিজেই চমকে যাবেন।

৬. জবাফুল আর অ্যালোভেরা জেলের হেয়ার প্যাক

শীতকালে কিন্তু সবথেকে বেশী যে সমস্যা হয়, সেটা হল অতিরিক্ত চুল পড়ে যাবার সমস্যা। আর জবাফুল কিন্তু আপনাকে এই সমস্যার হাত থেকে মুক্তি দিতে পারে খুব সহজেই। কারণ জবাফুল শুধু চুল পড়া আটকায়ই না, নতুন চুল গজাতেও সাহায্য করে।

উপকরণ
জবাফুলের পেস্ট ২ চামচ, অ্যালোভেরা জেল ১ চামচ।

পদ্ধতি
জবাফুলের পেস্ট আর অ্যালোভেরার জেল নিয়ে একটা বাটিতে ভালো করে মিশিয়ে একটা মসৃণ মিশ্রণ তৈরি করুন। মাথায় ভালো করে ওটা লাগিয়ে আধঘণ্টা বসে থাকুন। পরে হালকা কোনো শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। একবার করেই দেখুন না, তারপর জবাফুলের কামাল দেখার পর কথা দিচ্ছি, বারবার করতে চাইবেন।

৭. পাতিলেবু আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

পাতিলেবু
পাতিলেবুতে প্রচুর ভিটামিন সি থাকে, যা চুলে থাকা কোলাজেনের সিন্থেসিসে দারুণ সাহায্য করে। আর খুশকির সমস্যায় পাতিলেবু যে যম, তা আপনারা জানেনই।

উপকরণ
ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল ২ চামচ, পাতিলেবুর রস ১ চামচ।

পদ্ধতি
অ্যালোভেরা জেল আর পাতিলেবুর রস একসাথে মিশিয়ে আপনার চুলের গোড়া আর স্ক্যাল্পে ভালো করে ম্যাসাজ করে লাগান। এরপর ২০-২৫ মিনিট রেখে হালকা শ্যাম্পু করে নিন। সপ্তাহে একদিন করেই দেখুন, খুশকি ভ্যানিশ হয়ে দেখবেন ঘন মখমলের মতো চুল আবারও ফিরে পেয়েছেন।

৮. হেনা আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

চুলের যত্নে হেনা যে কত্ত উপকারী, তা আপনারা জানেনই। তাই এবার হেনা ব্যবহার তো করবেনই। হেনার সাথে অ্যালোভেরা জেলও মিশিয়ে দেখবেন নাকি?

উপকরণ
হেনা ২ চামচ, অ্যালোভেরা জেল ১ চামচ, দই ২ চামচ।

পদ্ধতি
হেনা, অ্যালোভেরা জেল আর টক দই একসাথে মিশিয়ে নিয়ে গোটা মাথায় ভালো করে ম্যাসাজ করে ফেলুন। পুরোপুরি শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা জলে মাথা ধুয়ে শ্যাম্পু করে ফেলুন। সপ্তাহে একদিন ব্যবহার করেই দেখুন না। তবে এই হেয়ার প্যাক কিন্তু বেশী ব্যবহার করবেন না, কারণ হেনা এমনিতেই চুলকে ড্রাই করে দেয়। তাই এই হেয়ার প্যাক ঘন ঘন ব্যবহার করলে আপনার চুল কিন্তু ড্রাই আর রাফ হয়ে যেতে পারে।

৯. অ্যালোভেরা আর ভিটামিন ই তেলের হেয়ার প্যাক

ভিটামিন ই-তে প্রচুর অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট থাকে, যা আপনার চুলকে এই ঠাণ্ডায় সবরকম ড্যামেজের হাত থেকে রক্ষা করে।

উপকরণ
অ্যালোভেরা জেল ১ চামচ, লেবুর রস ১ চামচ, ভিটামিন ই তেল ১ চামচ, বাদাম তেল ২ চামচ।

পদ্ধতি
সব উপকরণ একসাথে মিশিয়ে চুলে ভালো করে ম্যাসাজ করুন। মিনিট ২০ মতো রেখে ধুয়ে ফেলুন ভালো করে। সপ্তাহে বার দুয়েক করুন। তফাৎ আপনি নিজেই দেখতে পাবেন।

১০. মেথি আর অ্যালোভেরার হেয়ার প্যাক

মেথি
শুনে অবাক হচ্ছেন তো? আজ্ঞে অবাক হবার কিস্যু নেই। চুলের যত্ন নিতে মেথি কিন্তু এক নম্বর জিনিস। খুশকি থেকে হেয়ার ফল, ময়েশ্চারাইজিং থেকে নতুন চুল গজানো—চুলের এ টু জেড সব সমস্যার সমাধানে মেথি সেরা।

উপকরণ
মেথি গুঁড়ো ২ চামচ, ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল ২ চামচ।

পদ্ধতি
মেথি গুঁড়ো আর অ্যালোভেরা জেল একসাথে মিশিয়ে স্ক্যাল্পে আর চুলে ভালো করে ম্যাসাজ করে ফেলুন। আধঘণ্টা রেখে হালকা শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে একদিন করে একমাস ট্রাই করেই দেখুন না। কাজ না হলে না হয় আমাদেরই বলবেন!

হেয়ার প্যাক বানানোর জন্য ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করাই সবসময় ভালো। কিন্তু বাড়িতে সে ব্যবস্থা যদি না থাকে, তাহলে কেনা অ্যালোভেরা জেলই ব্যবহার করুন।

তাহলে এবার আর দেরি না করে অ্যালোভেরা জেলের হেয়ার প্যাক ব্যবহার করুন চুলের যত্নে। অ্যালোভেরার কামালে দেখবেন আপনার এক ঢাল ঘন কালো সিল্কি অ্যান্ড শাইনি চুল দেখে সব্বাই হিংসে করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *